অনুমতি ছাড়া দরপত্রের ব্যাংক গ্যারান্টি প্রত্যাহার করা যাবে না

এখন থেকে অনুমতি ছাড়া সরকারি বিভিন্ন টেন্ডারে অংশগ্রহণকারী ঠিকাদার ও প্রতিষ্ঠানের ব্যাংক গ্যারান্টি মাঝপথে প্রত্যাহার করা যাবে না।

প্রচলিত বিধান অমান্য করে অনেক ব্যাংক দরপত্র মূল্যায়নের সময় ঋণ প্রতিশ্রুতি বাতিল করায় সর্বনিম্ন দরদাতা হয়েও অনেকে কাজ পাচ্ছেন না। এমন অবস্থায় অধিকতর স্বচ্ছতা ও সরকারি ব্যয় কমানোর জন্য দরপত্র আহ্বানকারীর অনুমতি ছাড়া এ ধরনের সম্মতি বাতিল না করার নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

বুধবার (১৩ অক্টোবর) এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে সব ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে পাঠানো হয়।

এতে বলা হয়েছে, দরপত্রদাতার আর্থিক যোগ্যতা যাচাইয়ের অংশ হিসেবে তরল সম্পদ সংস্থান বাবদ ব্যাংক থেকে ঋণ সরবরাহের বিষয়ে একটি প্রতিশ্রুতিপত্র জমা দিতে হয়। পরিকল্পনা মন্ত্রণালয় প্রণীত বিধান অনুযায়ী যা জমা নেয় দরপত্র আহ্বানকারী প্রতিষ্ঠান। ব্যাংকের এ প্রতিশ্রুতির মেয়াদ দরপত্র সংশ্লিষ্ট কাজ সফলভাবে সম্পন্ন হওয়া পর্যন্ত থাকার কথা। সম্প্রতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে, কিছু ব্যাংক দরপত্র মূল্যায়নের সময় দরদাতার অনুকূলে ইস্যু করা প্রতিশ্রুতিপত্র প্রত্যাহার করে নিচ্ছে। ফলে সর্বনিম্ন দরদাতার চেয়ে বেশি দরদাতা প্রতিষ্ঠান কাজ পাচ্ছে। এতে একদিকে সরকারি কাজ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। অন্যদিকে সরকার বিপুল অঙ্কের আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে।

প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়েছে, সরকারের অপ্রয়োজনীয় ব্যয় রোধ, সরকারি কাজ দ্রুত শেষ করা এবং দরপত্র প্রক্রিয়ায় অধিকতর স্বচ্ছতা আনার জন্য ব্যাংকের ইস্যু করা ‘লেটার অব কমিটমেন্ট ফর ব্যাংকস আন্ডারটেকিং’ সংশ্লিষ্ট দরপত্র আহ্বানকারীর সম্মতি ছাড়া প্রত্যাহার করা যাবে না। অবিলম্বে এ নির্দেশনা কার্যকর হবে বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে।

অর্থসূচক/এমএস/কেএসআর

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •