একটা-দুইটা সিনেমা দিয়ে সফলতা বিচার করব না: দীঘি

পুরো নাম প্রার্থনা ফারদিন দীঘি। তবে সবার কাছে পরিচিত দীঘি হিসেবেই। শিশুশিল্পী হিসেবে দেশজুড়ে জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন। বলা চলে, দেশের সিনেমায় তার মতো সাফল্য কোনো শিশুশিল্পীই পাননি। সেই দীঘি এখন পুরোদস্তুর নায়িকা। এরই মধ্যে বড় পর্দায় তার নায়িকাযাত্রা হয়ে গেছে।

দীঘির ‘তুমি আছো তুমি নেই’ এবং ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়াভাই’ নামের দুটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। সিনেমাগুলো সফল হয়নি। বরং নানা কারণে হয়েছে সমালোচিত। তাই শিশুশিল্পী দীঘি সফল হলেও নায়িকা দীঘি এখনো ব্যর্থ।

যদিও নিজেকে এখনই ব্যর্থ মানতে নারাজ এ নায়িকা। তার ভাষ্য, ‘আমি মনে করি সফলতা কিংবা ব্যর্থতার বিষয়টি বিবেচনা করার আগে অন্তত পাঁচ থেকে সাতটি সিনেমা মুক্তি পাওয়া দরকার। একটা-দুইটা সিনেমা দিয়ে আমি কারো সফলতা বিচার করব না। আমি নায়িকা হয়েছি বেশিদিন হয়নি। সুতরাং এখনই আমাকে ব্যর্থ বলার সুযোগ নেই। আরেকটু সময় দেওয়া হোক, আমি কী পারি, কী পারি না সেটা দেখানোর জন্য। তারপর তারা বলুক আমি সফল না বিফল।’

একটি সংবাদমাধ্যমের কাছে দীঘি জানান, ছোট বেলায় তিনি চিকিৎসক হওয়ার স্বপ্ন দেখতেন। তার মা অভিনেত্রী দোয়েল যখন অসুস্থ হতেন, তখন দীঘির মনে উঁকি দিত ডাক্তারির স্বপ্ন। ভাবতেন, নিজে ডাক্তার হয়ে মায়ের চিকিৎসা করবেন। তবে মায়ের মৃত্যুর পর সেই স্বপ্নও হারিয়ে যায় দিঘির মন থেকে। এখন তার সব ধ্যানজ্ঞান সিনেমা ঘিরে। নিজেকে সফল নায়িকা হিসেবেই প্রতিষ্ঠিত করতে চান এ তরুণী।

এদিকে সম্প্রতি দীঘি যুক্ত হয়েছেন নতুন আরেকটি সিনেমা। যেটার নাম ‘শ্রাবণ জ্যোৎস্নায়’। সরকারি অনুদান পাওয়া এই সিনেমা নির্মাণ করছেন আবদুস সামাদ খোকন।

অর্থসূচক/

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •