মুস্তাফিজদের উড়িয়ে পয়েন্ট টেবিল জমিয়ে দিল মুম্বাই

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) রাজস্থান রয়্যালসকে ৮ উইকেটের ব্যবধানে হারিয়ে পয়েন্ট টেবিল জমিয়ে তুলেছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ১৩ ম্যাচে ৬ জয়ে ১২ পয়েন্ট নিয়ে ৫ নম্বরে উঠে এসেছে রোহিত শর্মার দল। সমান ম্যাচে ১২ নিয়ে নেট রান রেটে এগিয়ে থেকে চারে রয়েছে কলকাতা নাইট রাইডার্স।

এই ম্যাচ হারলেও প্লে অফের আশা শেষ হয়ে যায়নি রাজস্থানের। শেষ ম্যাচে কলকাতার বিপক্ষে বড় জয় পেলে তাদেরও আশা থাকবে প্লে অফে খেলার। অবশ্য তাদের সে সময় অপেক্ষা করতে হবে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে মুম্বাইয়ের হারের জন্য।

এই ম্যাচে ব্যাটে-বলে পুরোপুরি ব্যর্থ হয়েছে রাজস্থান। টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে এবারের আসরে সর্বনিন্ম সংগ্রহে থামে রাজস্থান রয়্যালসের ইনিংস। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বোলারদের তাণ্ডবে নির্ধারিত ২০ ওভারে রাজস্থানের সংগ্রহ ৯ উইকেট হারিয়ে ৯০ রান। দলটির হয়ে সর্বোচ্চ ২৪ রানের ইনিংস খেলেছেন ওপেনার এভিন লুইস।

এ ছাড়া আরেক ওপেনার ইয়াসভি জায়সাওয়াল ১২, মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ডেভিড মিলার ১৫ ও রাহুল তেওয়াতিয়া করেছেন ১২ রান। আর কেউই দুই অঙ্কে পৌঁছাতে পারেননি। রাজস্থানের ইনিংসের শেষের দিকে ১ ছক্কায় ৭ বলে ৮ রান করে অপরাজিত ছিলেন মুস্তাফিজুর রহমান।

মুম্বাইয়ের হয়ে বল হাতে সবচেয়ে বেশি দ্যুতি ছড়িয়েছেন নাথান কোল্টার নাইল। এই পেসার একাই নিয়েছেন ৪ উইকেট। ৩টি উইকেট পেয়েছেন কিউই পেসার জিমি নিশাম। আর জসপ্রিত বুমরাহর দখলে গেছে ২ উইকেট।

ছোটো লক্ষ্য পেয়ে শুরুটা আক্রমণাত্মক ছিল মুম্বাইয়ের। প্রথম ওভারেই মুস্তাফিজের হাতে বল তুলে দিয়েছিলেন রাজস্থান অধিনায়ক সাঞ্জু স্যামসন। দুই ডটে দারুণ শুরু করলেও পরের চার বলে মুস্তাফিজ খরচা করেন ১৪ রান। এর মধ্যে ওভারের পঞ্চম বলে বোলারের মাথার উপর দিয়ে দারুণ এক ছক্কা হাকান রোহিত শর্মা। বেশি আক্রমণাত্মক হতে গিয়ে ১৩ বলে ২২ রান করে চেতন সাকারিয়ার শিকার হয়েছেন রোহিত। তাকে শর্টে দারুণ ডাইভিং ক্যাচে ফিরিয়েছেন জায়সাওয়াল।

এরপর দ্বিতীয় ওভারে এসে ১৩ রান করা সূর্যকুমার যাদবকে লমরোরের ক্যাচ বানিয়ে আউট করেন মুস্তাফিজ। সেই ওভারে এই বাঁহাতি খরচা করেন মাত্র ৮ রান। এরপর ওপেনার ইশান কিশানের ২৫ বলে অপরাজিত ৫০ ও হার্দিক পান্ডিয়ার ৬ বলে ৫ রানে ৮.২ ওভারেই জয় তুলে নেয় মুম্বাই।

কিশানের তোপের মুখে দুই বলে ১০ রান খরচা করেন মুস্তাফিজ। সেই ওভারের দ্বিতীয় বলে ছক্কা হাঁকিয়ে মুম্বাইকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দেন কিশান। রাজস্থান নিজেদের শেষ ম্যাচে ৭ অক্টোবির শারজাহতে কলকার মুখোমুখি হবে।

 

অর্থসূচক/এএইচআর

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •