ইট দিয়ে আঘাতের পর কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে হত্যার

খাগড়াছড়ির রামগড়ে চাইথোয়াই মারমা (৬০) নামে এক ব্যক্তিকে ইট দিয়ে আঘাতের পর গায়ে কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার (৫ সেপ্টেম্বর) রাতে পৌর এলাকার মাস্টারপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ অভিযুক্ত যুবক শরীফ পাটোয়ারীকে (২৫) গ্রেপ্তার করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, সন্ধ্যায় চাইথোয়াই মারমা বাজারে যাওয়ার সময় বাসার অদূরে রাস্তায় শরীফ পাটোয়ারী নামে এক যুবক আকস্মিকভাবে তার ওপর হামলা চালায়। অভিযুক্ত যুবক প্রথমে ইট দিয়ে আঘাত করে তাকে গুরুতর আহত করে। পরে আহত চাইথোয়াইর গায়ে কেরোসিন ঢেলে দিয়াশলাই জ্বেলে আগুন ধরিয়ে দেন। এ সময় আশপাশের লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. নরেন চৌধুরী জানান, আগুনে চাইথোয়াই মারমার শরীরের ৮০ ভাগ পুড়ে যায়। এছাড়া শরীরে আঘাতের চিহ্ন ছিল।

নিহতের ছেলে অংশিউ মারমা বলেন, শরীফ তাদের প্রতিবেশী। সোমবার রাত সাড়ে ১১টায় শরীফ তাদের ঘরে আগুন দিয়েছিল। এ ঘটনায় মঙ্গলবার তিনি থানায় একটি লিখিত অভিযোগও দেন।

হত্যার ঘটনায় আটক শরীফের বাবা আবু আহমেদ পাটোয়ারী জানান, তিনি সন্ধ্যায় ফেনী থেকে রামগড়ে এসে ঘটনাটি শুনেছেন। তবে তার ছেলে ঘটনার সঙ্গে জড়িত কিনা তা তিনি জানেন না। তার ছেলেটি গত দুই বছর ধরে মানসিকরোগে ভুগছে। চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন স্থানে তাকে চিকিৎসা করানো হয়েছে।

রামগড় থানার ওসি (তদন্ত) রাজীব কর বলেন, হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে শরীফ পাটোয়ারীকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। সে মাস্টারপাড়ার আবু আহমেদ পাটোয়ারীর ছেলে। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য খাগড়াছড়ি পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।

অর্থসূচক/এএইচআর

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •