পাকিস্তানের কাছে ২০১৮ সালের নিরাপত্তা চায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ

নিরাপত্তাজনিত কারণে সম্প্রতি পাকিস্তান সফর স্থগিত করেছে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। এর ফলে দেশটিতে শঙ্কা দেখা দিয়েছে ক্রিকেটের ভবিষ্যত নিয়ে। কিন্তু এই বছরের শেষের দিকে পাকিস্তান সফরের ব্যাপারে ইতিবাচক ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট (ডব্লিউআইসি)। যদিও ডব্লিউসির প্রধান নির্বাহী জনি গ্রেভ বলছেন নিরাপত্তা প্রক্রিয়া বিশ্লেষণ করেই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন।

সর্বশেষ ২০১৮ সালে পাকিস্তান সফর করেছিল ক্যারিবিয়ানরা। বেশ কড়া নিরাপত্তা প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে সেই সফর সম্পন্ন করেছিল কাইরন পোলার্ড-জেসন হোল্ডাররা। এবার আসন্ন ডিসেম্বর-জানুয়ারিতে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে পাকিস্তানে পা রাখার কথা তাদের। এই সফরেও একই ধরনের নিরাপত্তা পাওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী দেশটির ক্রিকেট বোর্ডের।

আসন্ন পাকিস্তান সফর প্রসঙ্গে গ্রেভ বলেন, ‘এই মুহূর্তে আমাদের লক্ষ্য হচ্ছে সফল সফর আয়োজন করা। নিরাপত্তার ব্যাপারে আমরা একটি প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যাব যা ২০১৮ সালের সফরে করেছিলাম। আমরা পূর্বের প্রক্রিয়াই অনুসরণ করব। ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক, ওয়েস্ট ইন্ডিজ প্লেয়ার অ্যাসোসিয়েশন এবং ক্রিকেটার সবার সঙ্গে আলোচনা করেই পরিকল্পনা করব। আমাদের অধিকাংশ পুরুষ এবং নারী ক্রিকেটার গত বছর পাকিস্তানের মাটিতে খেলেছে।’

ডব্লিউসি পাকিস্তান সফরের ব্যাপারে ইতিবাচক হলেও চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের ব্যাপারে তাড়াহুড়া করতে রাজি নয় তারা। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমরা দ্রুতই কোনো সিদ্ধান্ত নিব না। আমরা পিসিবি এবং নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলোচনা করেই পরিকল্পনা করব। আমরা খেলোয়াড়দের সঙ্গে সব তথ্য ভাগাভাগি করব এবং তাদের সঙ্গে আলোচনা করব। আমাদের এই প্রক্রিয়া আমারা শীঘ্রই শুরু করব।’

 

অর্থসূচক/এএইচআর

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •