সমালোচনার মধ্যে পদত্যাগ করার কথা জানালেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী

জাপানের প্রধানমন্ত্রী ইউশিহিদে সুগা তার মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর ইঙ্গিত দিলেন। দলের পক্ষ থেকে তিনি আর পুনরায় নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন না।

এক বছর আগে স্বাস্থ্যগত কারণে সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের পদত্যাগের পর প্রধানমন্ত্রী হন ৭১ বছর বয়সী ইউশিহিদে সুগা।

করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি সামলাতে নেওয়া পদক্ষেপের তীব্র সমালোচনার মধ্যে সরে দাঁড়ানোর ইচ্ছের কথা জানিয়েছেন ইউশিহিদে সুগা। আজ শুক্রবার (০৩ সেপ্টেম্বর) তিনি পদত্যাগের ইচ্ছার বিষয়টি জানান।

২৯ সেপ্টেম্বর ক্ষমতাসীন দল লিবারেল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা। এজন্য প্রচার শুরু হবে ১৭ সেপ্টেম্বর থেকে।

সুগা প্রধানমন্ত্রী হওয়ার এক বছরের মাথায় এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। দলের নেতা নির্বাচনে প্রার্থী হবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন সুগা। এ নির্বাচনে যিনিই জিতবেন তিনি জাপানের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী হবেন। কারণ পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষে দলটির সংখ্যাগরিষ্ঠতা রয়েছে। আগামী ১৭ অক্টোবর দেশটিতে সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে পারে।

সরে দাঁড়ানোর প্রসঙ্গে জাপানের প্রধানমন্ত্রী বলেন, নির্বাচনে অংশ নেওয়ার পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু একই সঙ্গে করোনা ঠেকানো এবং নির্বাচনে অংশ নিতে হলে বিপুল পরিমাণ শক্তি দরকার। আমি ভেবে দেখলাম— দুটো কাজ একসঙ্গে করতে পারব না। তখন আমাকে যে কোনো একটি বেছে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিতে হলো। আমি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মনোনিবেশ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

একটি সূত্রের বরাতে কিয়োডো নিউজের খবরে বলা হয়, ইউশিহিদে সুগা ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করে যাবেন।

গত বছর সেপ্টেম্বরে শিনজো অ্যাবে স্বাস্থ্যজনিত কারণে পদত্যাগ করলে প্রধানমন্ত্রী হন সুগা। কিন্তু এই বছরের সাধারণ নির্বাচনের আগে করোনা মহামারিতে সুগার জনপ্রিয়তা ৩০ শতাংশের নিচে নেমে এসেছে।

সূত্র: বিবিসি।

অর্থসূচক/কেএসআর

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •